সরকারি গাছ কেটে নিলেন ইউপি চেয়ারম্যানের ভাই

0
IQSHA IT

বরগুনা প্রতিনিধি:- বরগুনা সদর উপজেলার এম বালিয়াতলী ইউনিয়নের চেয়ারম্যানের ভাই আবদুল হালিমের বিরুদ্ধে সরকারি গাছ কেটে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। শনিবার বিকেলে তিনি পরীরখাল বাজার সংলগ্ন সরকারি জমিতে বন বিভাগের রোপিত দুটি গাছ তিনি কেটে নিয়েছেন বলে এলাকাবাসীর অভিযোগ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শনিবার বিকেল চারটার দিকে পরীখাল বাজার সংলগ্ন পরীরখাল-নিশানবাড়িয়া সড়কে পাশে বন বিভাগের রোপিত একটি রেইনট্রি ও একটি চাম্বল গাছ কেনে নিয় তিনি দাড়িয়ে থেকে শ্রমিকদের দিয়ে গাছ কাটার পর বাড়িতে নিয়ে যান।

ওই এলাকার বাসিন্দা কাজেম আলী নামের একজন বলেন, গাছগুলো ১২/১৩ বছর আগে বন বিভাগ রোপন করেছিল। এখন এর আনুমানিক দাম হবে ২০ থেকে ২৫ হাজার টাকা।

গাছ কেটে নেয়ার বিষয়ে জানতে একাধিকবার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও আবদুল হালিমকে পাওয়া যায়নি। এছাড়াও তাঁর মুঠোফোন নম্বরটিও বন্ধ পাওয়া যায়।

যোগাযোগ করা হলে এম বালিয়াতলি ইউপির চেয়ারম্যান শাহনেওয়াজ সেলিম বলেন, গাছ কেটে নেয়ার বিষয়টি আমার জানা নেই। যদি সরকারি গাছ কেউ অননুমোদিত কেটে নেয় তবে এটা আইনগত বৈধ না। আমি বিষয়টি খোঁজ নিয়ে জেনে দেখবো।

বন বিভাগ বরগুনার সামাজিক বনায়ন ও নার্সারি এবং প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের কর্মকর্তা ও ওই এলাকার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মতিউর রহমান মুঠোফোনে রবিবার দুপুরে বলেন, ওই গাছ বন বিভাগের সামাজিক বনায়ন কর্মসূচির আওতার রোপিত। কেউ যদি গাছ কেটে নেয় তবে তাঁর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!